Agaminews
Agaminews Banner

টেকনাফে ইয়াবা ও অস্ত্রসহ আটক ২


আজকের বার্তা | প্রকাশিত: মে ০৬, ২০২১ ১১:২৪ পূর্বাহ্ণ টেকনাফে ইয়াবা ও অস্ত্রসহ আটক ২

বার্তা ডেস্ক ॥
কক্সবাজারের টেকনাফ সীমান্তে বিজিবি ও মাদক চোরাকারবারীদমদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ১০ হাজার পিস ইয়াবা, একটি দেশীয় এলজি ও একটি গুলির খালি খোসা উদ্ধার করা হয়। বুধবার ভোররাতে উপজেলার হোয়াইক্যং ইউনিয়নের উনচিপ্রাং সংলগ্ন লম্বাবিল সীমান্ত এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে এসব উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জড়িত দুই মাদক চোরাকারবারীকে আটক করতে সক্ষম হয়েছে। টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, উপজেলার হোয়াইক্যং লম্বাবিল এলাকার বেড়ীবাঁধের আড় দিয়ে মিয়ানমার হতে ইয়াবার বড় চালান আসবে এমন সংবাদ পেয়ে উনচিপ্রাং বিজিবি সদস্যরা ওই এলাকায় টহল দিতে থাকে। এ সময় ৩/৪ জনকে নাফনদী পার হয়ে বাংলাদেশ সীমান্তের দিকে আসতে দেখা যায়। বিজিবি টহলদলের সদস্যরা তাদের চ্যালেঞ্জ করে থামতে বলে। তারা না থামিয়ে বিজিবি টহলদলের উপর অতর্কিত গুলিবর্ষণ শুরু করে। এতে দুইজন বিজিবি সদস্য আহত হয়। আত্মরক্ষার্থে বিজিবিও পাল্টা গুলি চালায়। উভয় পক্ষের মধ্যে দুই-তিন মিনিট গুলি বিনিময়ের পর দুইজনকে আহত অবস্থায় একটি পলিথিনের ব্যাগসহ আটক করা হয়। অন্য দুষ্কৃতিকারীরা দ্রুত অন্ধকারের সুযোগ নিয়ে নাফনদী সাঁতরিয়ে মিয়ানমারের দিকে পালিয়ে যায়। অনেক খুঁজেও তাদের পাওয়া যায়নি। পরে ঘটনাস্থল থেকে একটি পলিথিনের ব্যাগ তল্লাশী করে ৩০ লাখ টাকা মূল্যের ১০ হাজার পিস ইয়াবা, একটি দেশীয় তৈরি এলজি ও একটি গুলির খালি খোসা পাওয়া যায়। আটককৃতরা হলেন উপজেলার হোয়াইক্যং ইউনিয়নের লম্বাবিল এলাকার মো. নুর আলমের ছেলে মো. আমির হোসেন প্রকাশ ডায়লা (৩০) এবং একই এলাকার নুর আহমদের ছেলে মো. আজিজ উল্লাহ (৩০)। তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় আহত বিজিবি সদস্যদের টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথামিক চিকিৎসা প্রদান করা হয়ছে। উদ্ধার ইয়াবা ও অস্ত্রসহ আটককৃতদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা রুজু করে টেকনাফ মডেল হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানিয়েছে বিজিবির এই কর্মকর্তা।