Agaminews
Agaminews Banner

বরিশালে গৃহবধূকে হত্যার পর লাশ ফেলে স্বামীর পলায়ন


আজকের বার্তা | প্রকাশিত: এপ্রিল ১৭, ২০২১ ৫:৩৮ অপরাহ্ণ বরিশালে গৃহবধূকে হত্যার পর লাশ ফেলে স্বামীর পলায়ন
নিজস্ব প্রতিবেদক ॥
বরিশালে এক গৃহবধূকে হত্যার পর লাশ হাসপাতালে রেখে পালিয়ে গেছে স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকজন। জেলার বাবুগঞ্জ সীমান্তবর্তী বিল্লবাড়ী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়েও কাউকে পায়নি। গৃহবধূ সুমী আক্তার(৩০) এর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের মর্গে প্রেরন করা হয়। সুমী আক্তারের মা রিনা বেগম বলেন, ১৫/১৬ বছর পূর্বে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলার পূর্ব রহমতপুর গ্রামের মৃত্যু মোয়াজ্জেম হোসেন ফটর আলীর মেয়ে সুমী আক্তারকে বাবুগঞ্জ সীমান্তবর্তী কাশিপুর বিল্লবাড়ি গ্রামের আয়নাল গাজী ছেলে মোঃ নয়ন গাজীর সঙ্গে বিয়ে হয়। তাদের বর্তমানে ১০ বছরের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের দাবিতে স্বামী মোঃ নয়র গাজী ও তার বাবা মা সহ পরিবারের সবাই সুমীর ওপর নানা ধরনের অত্্যাচার নির্যাতন চালিয়ে আসছিল। গত শুক্রবার দুপুরেও সুমীকে শ্বশুড় শাশুড়ি,স্বামী সুমীর সঙ্গে ঝগড়া করে। রাত ৯টার সময় ঘরের মধ্যে থেকে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয় বলে তার বাবার বাড়িতে খবর দেয় শ্বশুড়বাড়ির লোকজন। এদিকে লম্ফট স্বামী মোঃ নয়ন গাজী তার লাশ বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে রেখে পালিয়ে যায়। নিহতের মা রিনা বেগম আরো জানান রাতে তাকে নির্যাতনের পর হত্যা করে ঘরের আড়ার সঙ্গে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা বলে প্রচারনা চালিয়েছে শ্বশুড়বাড়ির লোকজন। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। বিমানবন্দর থানা ওসি কমলেস চন্দ্র হালদার বলেন, সকালে আমরা লাশ উদ্ধার করেছি। তবে স্বামী আগেই পালিয়ে গেছে। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হচ্ছে। আসামীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।