Agaminews
Agaminews Banner

কাঠালিয়ায় এসএসসি পরীক্ষার্থীর উপর হামলা, আটক-১


আজকের বার্তা | প্রকাশিত: নভেম্বর ২৪, ২০২১ ৭:১১ পূর্বাহ্ণ কাঠালিয়ায় এসএসসি পরীক্ষার্থীর উপর হামলা, আটক-১

কাঠালিয়া প্রতিনিধি ॥

ঝালকাঠির কাঠালিয়ায় এসএসসি পরীক্ষার্থীকে উত্ত্যাক্ত করার প্রতিবাদ করায় হাসিবুল ইসলাম লিখন নামের এক পরীক্ষার্থীর হামলার শিকার হন সমাপ্তি রানী সিকদার।

হামলাকারী ও আহত শিক্ষার্থী কাঠালিয়া স্কুল এন্ড কলেজ কেন্দ্রে থেকে মানবিক বিভাগে এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছেন।
আজ ২৩ নভেম্বর মঙ্গলবার দুপুরে পরীক্ষা শেষে বাড়িতে ফেরার সময় উপজেলা সদরের কাঠালিয়া মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সড়কে এ ঘটনা ঘটে। আহত সমাপ্তিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে (আমুয়া) ভর্তি করা হয়েছে। হামলাকারী লিখনকে আটক করেছে পুলিশ।

সমাপ্তির পরিবার জানায়, মঙ্গলবার পৌরনীতি বিষয়ে পরীক্ষায় অংশ নেয় সে। একই কেন্দ্রে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয় উপজেলার শৌলজালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য হারুন অর রশীদ লাভলুর ছেলে হাসিবুল ইসলাম লিখন। পরীক্ষা শেষে কেন্দ্রের মধ্যে বসেই সমাপ্তিকে উত্ত্যক্ত করে লিখন। এ ঘটনার প্রতিবাদ করে ওই পরীক্ষার্থী। বিষয়টি দেখে পরীক্ষার কেন্দ্রসচিব মো. জলিলুর রহমান আকন উভয়কে ডেকে মীমাংসা করে দেন। কেন্দ্র থেকে বাইরে বের হলে সমাপ্তির ওপর হামলা চালায় লিখন।

সমাপ্তি রানীর স্বামী সাগর দেবনাথ বলেন, ‘পরীক্ষার শুরু থেকেই কেন্দ্রে যাওয়া-আসার পথে বখাটে হাসিবুল ইসলাম লিখন আমার স্ত্রীকে উত্ত্যক্ত করে আসছে। বিষয়টি আমি পুলিশকে জানাই। এ ঘটনায় লিখনকে সোমবার থানায় ডেকে নিয়ে মুচলেকা রেখে ছেড়ে দেয় পুলিশ। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সে আমার স্ত্রীর ওপর হামলা করে। আমি ও আমার মাকেও মারধর করে লিখন।’

কাঠালিয়া পাইলট গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ও কেন্দ্র সচিব মোঃ জলিলুর রহমান আকন বলেন, বলতলা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের এক নারী পরীক্ষার্থীর সঙ্গে কাঠালিয়া সরকারি পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের পরীক্ষার্থীর কেন্দ্রে বসে কোনো বিষয় নিয়ে ঝামেলা হয়। পরীক্ষার পর বিষয়টি মীমাংসা করে দেওয়া হয়। এরপর বাইরে কী হয়েছে আমার জানা নেই। শুনেছি এক যুবককে পুলিশ আটক করেছে।

কাঠালিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মুরাদ আলী বলেন, ‘বখাটেপনা করার অপরাধে হাসিবুল ইসলাম লিখন নামের একজনকে আটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে এখনো কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।’

লিখনের বাবা হারুন অর রশীদ লাভলু বলেন, আমার ছেলে হাসিবুল ইসলাম এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে। কেন্দ্রে বসে সমাপ্তি নামে অপর এক পরীক্ষার্থীর সঙ্গে সামান্য ভুল বোঝাবোঝি হয়। বিষয়টি কেন্দ্রসচিব মীমাংসা করে দেন। কেন্দ্রের বাইরে হামলার সঙ্গে আমার ছেলে জড়িত নয়।